শুক্রবার, ২৫ Jun ২০২১, ০১:৫০ অপরাহ্ন

শিরোনাম :
ইভ্যালি-আলেশা মার্টসহ ১০টি প্রতিষ্ঠানে কেনাকাটায় ব্র্যাক ব্যাংকের নিষেধাজ্ঞা জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীদের শর্তসাপেক্ষে ২য় বর্ষে প্রমোশন গুলশানে‌ ফ্ল্যাট থেকে তরুণীর লাশ উদ্ধার, বসুন্ধরা গ্রুপ এর এমডি তানভীর এর বিরুদ্ধে মামলা শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলার তারিখ আবারও পেছালো কক্সবাজারে বিনোদনে নতুন মাত্রা যোগ করেছে কায়াকিং জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা স্থগিত ঢাকায় বয়ফ্রেন্ড ভাড়া করছে কোটিপতির সুন্দরী মেয়েরা ফুল আর ভালোবাসায় সিক্ত হলেন নজরুল মন্ডল টানা তিবারের (হ্যাট্রিক) কাউন্সিলর নাসির উদ্দিন রনি নির্বাচিত গোয়ালন্দ পৌর নির্বাচনে আওয়ামী লীগ প্রার্থী নজরুল মন্ডলের জয়লাভ
করোনামুক্ত হলেন রাজবাড়ী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফকীর আব্দুল জব্বার

করোনামুক্ত হলেন রাজবাড়ী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ফকীর আব্দুল জব্বার

করোনায় সংক্রমিত হয়ে হোম আইসোলেশনে থাকা রাজবাড়ী জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা আওয়ামী লীগের জ্যেষ্ঠ সহ-সভাপতি বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার (৭৪) করোনা মুক্ত হয়েছেন।

রোববার রাজবাড়ী জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে তাঁর করোনা রিপোর্ট নেগেটিভ হিসেবে আসে। এর আগে জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান গত বৃহস্পতিবার দ্বিতীয় বারের মতো করোনার নমুনা প্রদান করেন।

রাজবাড়ী জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার এর শরীরে আগষ্ট মাসের দ্বিতীয় সপ্তাহে করোনার উপসর্গ দেখা দেয়।

চিকিৎসকের পরামর্শে তিনি রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে করোনার নমুনা প্রদান করলে ১৬ আগষ্ট রাতে তাঁর করোনা পজিটিভ হিসেবে রিপোর্ট আসে। এরপর থেকে চিকিৎসকের পরামর্শে তিনি হোম আইসোলেশনে থেকে পারিবারিক চিকিৎসক দিয়ে চিকিৎসা গ্রহণ করছিলেন।

ফকীর আব্দুল জব্বার রাজনীতির পাশাপাশি সমাজ উন্নয়নে কাজের পাশাপাশি তাঁর গড়া দৌলতদিয়ায় বীর মুক্তিযোদ্ধা ফকীর আব্দুল জব্বার গার্লস স্কুল এন্ড কলেজ ছাড়াও বেশ কয়েকটি স্কুল, কলেজ প্রতিষ্ঠা করেন। তাঁর পরিচালনাধীন নিজস্ব বেসরকারী সংস্থা কর্মজীবী কল্যাণ সংস্থা (কেকেএস) প্রতিষ্ঠিত হয়েছে।

তিনি প্রতিষ্ঠানটির নির্বাহী পরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন। জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান হিসেবে তিনি করোনাকালীন সময়ে জেলার বিভিন্ন অঞ্চলে ছুটে বেড়ান। সম্প্রতি তাঁর শরীরে করোনার উপসর্গ দেখা দিলে তিনি জেলা স্বাস্থ্য বিভাগে করনোর নমুনা প্রদান করেন।

১৬ আগষ্ট তাঁর করোনা পজিটিভ হিসেবে রির্পোট আসার পর থেকে তিনি রাজবাড়ী শহরের বেড়াডাঙ্গার নিজ বাড়িতে হোম আইসোলেশনে থেকে চিকিৎসা গ্রহণ করেন।

তাঁর একমাত্র কন্যা রাজবাড়ীর ডাক্তার আবুল হোসেন বিশ্ববিদ্যালয় কলেজের সহকারী অধ্যাপক শামীমা আক্তার মুনমুন জানান, আব্বু রেডক্রিসেন্ট এর চেয়ারম্যান ও জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান হওয়ায় তিনি সার্বক্ষনিক বিভিন্ন অঞ্চল ছুটে বেড়ান।

করোনা সময় তিনি অসহায় মানুষের মাঝে সাহায্য সহযোগিতা প্রদানে ব্যস্ত থাকেন। এছাড়া সম্প্রতি জেলায় অনেক গুরুত্বপূর্ণ ব্যক্তি করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুবরণ করলে তাদের প্রতিটি জানাযায় অংশ গ্রহণ করেন।

বিভিন্ন সামাজিক কর্মকা- অব্যাহত রাখায় ধারণা করা হচ্ছে এখান থেকে তিনি করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। তবে বর্তমানে তিনি আগের থেকে অনেক ভালা আছেন।

শেয়ার করুন

© All rights reserved © 2021 BD SUNRISE