করোনামুক্ত হলেন প্রথম আলো সাংবাদিক রাশেদ রায়হান

নিজেস্ব প্রতিবেদক
  প্রকাশিত হয়েছেঃ  ০৭:৪৭ PM, ০৭ সেপ্টেম্বর ২০২০

টানা দেড় মাস হোম আইসোলেশন ও হোম কোয়ারেন্টিনে থেকে চিকিৎসা গ্রহণের পর করোনামুক্ত হলেন প্রথম আলো’র রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ প্রতিনিধি রাশেদ রায়হান। রোববার স্বাস্থ্য বিভাগ থেকে তাঁর করোনা নেগেটিভ হিসেবে রিপোর্ট আসে। তিনি গত ৩ সেপ্টেম্বর তৃতীয় বারের মতো করোনার নমুনা প্রদান করেন।

সাংবাদিক রাশেদ রায়হান ও তাঁর পরিবার জানায়, গত জুলাই মাসের তৃতীয় সপ্তাহে তিনি (রাশেদ রায়হান) ও তাঁর স্ত্রী সরকারি গোয়ালন্দ কামরুল ইসলাম কলেজের হিসাব বিজ্ঞান বিভাগের প্রভাষক নাসরীন আক্তারের শরীরের জ্বর, শর্দি, গলা ব্যাথা সহ করোনার উপসর্গ দেখা দেয়।

পরবর্তীতে চিকিৎসকের পরামর্শে তাঁরা উভয় গত ২১ জুলাই গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নমুনা প্রদান করেন। ২৬ জুলাই তাঁদের দুইজনের করোনা পজিটিভ হিসেবে রিপোর্ট আসে। এরপর থেকে তাঁরা গোয়ালন্দ পৌরসভার ৯নম্বর ওয়ার্ড বদিউজ্জামান বেপারীর পাড়ার বেপারী বাড়িতে হোম আইসোলেশনে থাকেন। এসময় গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আসিফ মাহমুদের পাশাপাশি সাংবাদিক রায়হানের কর্মস্থল প্রথম আলো কর্তৃক নিয়োগকৃত নিজস্ব চিকিৎসক মহিবুল্লার তত্বাধানে থেকে পরিবারের সকলে চিকিৎসা নিতে থাকেন।

২০ দিন পর তাঁরা উভয় গত ১২ আগষ্ট দ্বিতীয় বারের মতো করোনার নমুনা প্রদান করেন। তিন দিন পর ১৫ আগষ্ট তাঁর স্ত্রী প্রভাষক নাসরীন আক্তারের করোনা নেগেটিভ আসলেও সাংবাদিক রায়হানের দ্বিতীয় বারের মতো করোনা পজিটিভ হিসেবে রিপোর্ট আসে। ফের দুই সপ্তাহ তিনি হোম কোয়ারেন্টিনে থাকার পর গত বৃহস্পতিবার (৩ সেপ্টেম্বর) তৃতীয় বারের মতো গোয়ালন্দ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে নমুনা প্রদান করেন।

পরবর্তীতে তিন দিন পর রোববার (৬ সেপ্টেম্বর) তাঁর করোনার নেগেটিভ রিপোর্ট আসে। টানা দেড় মাস চিকিৎসা গ্রহণ শেষে সাংবাদিক রাশেদ রায়হান করোনামুক্ত হলেন।

গোয়ালন্দ প্রেসক্লাবের সাবেক তিন বারের সাধারণ সম্পাদক রাশেদ রায়হান করোনামুক্ত হয়ে রোববার মহান আল্লাহ তায়ালার প্রতি শুকরিয়া আদায় করে প্রথম আলো কর্তৃপক্ষ, বন্ধুসভা, সহকর্মী, শুভাকাঙ্খি, প্রশাসন ও সুধিজনদের প্রতি বিশেষ কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন। সাথে সকলের কাছে দেয়া চেয়ে তিনি সবাইকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার অনুরোধ জানান।

আপনার মতামত লিখুন :